বৃহস্পতিবার, ১৪ জানুয়ারী ২০২১, ১০:২০ অপরাহ্ন

চাটখিলে ধর্ষণের অভিযোগে ২ জন কারাগারে

চাটখিল সংবাদদাতা
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ২৪ আগস্ট, ২০২০

নোয়াখালীর চাটখিল উপজেলায় পাওনা টাকা আদায় করতে গিয়ে এক তরুণীকে (১৭) ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। সোমবার (২৪ আগস্ট) সকালে এ ঘটনায় জড়িত দুইজনকে গ্রেফতার করে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

গ্রেফতাররা হলো, চাটখিল উপজেলার মধ্য ভীমপুর গ্রামের নাঈম হোসেন ও তার সহযোগী ইউসুফ সুদান।

মামলা সূত্রে জানা যায়, ওই তরুণীর বাড়ি নোয়াখালীর পার্শ্ববর্তী লক্ষ্মীপুর জেলার রামগঞ্জ উপজেলায়। তার বাবা পরিবার নিয়ে গত ছয় বছর ধরে চাটখিল পৌর এলাকার ভীমপুর গ্রামে ভাড়া বাসায় বসবাস করে আসছেন।

গত শুক্রবার সন্ধ্যায় নাঈম পাওনা টাকা আদায় করতে ওই তরুণীর বাসায় যায়। বাসা খালি পেয়ে নাঈম তার মুখ চেপে হত্যার ভয় দেখিয়ে ধর্ষণ করেন। একপর্যায়ে তরুণীর চিৎকারে আশেপাশের ভাড়াটিয়া ঘটনাটি দেখে নাঈমকে আটক করে। পরে নাঈমের বন্ধু একই এলাকার ইউসুফ সুদানি এসে তাদের মারধর করে নাঈমকে ছাড়িয়ে নিয়ে যায় এবং হুমকি দিয়ে যায়। পরদিন শনিবার সন্ধ্যায় মেয়েটির বাবা নাঈম ও ইউসুফকে আসামি করে চাটখিল থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করলে তাৎক্ষণিক পুলিশ অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে।

চাটখিল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ারুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, রোববার সকালে ভিকটিমকে মেডিকেল পরীক্ষার জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ও ২২ধারা জবানবন্দির জন্য জেলা জজ আদালতে পাঠানো হয়েছে। এছাড়া আসামিদের কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক ডা. সৈয়দ মহিউদ্দিন আবদুল আজিম জানান, তরুণীকে রোববার সকালে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে এবং ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য সব আলামত সংগ্রহ করা হয়েছে।

মতামত লিখুন :

এ জাতীয় আরো খবর..

আপনি কি খুঁজছেন?

পুরোনো মাসের সংবাদ

© All rights reserved © 2019 Digital Noakhali
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazardnoakha4