বৃহস্পতিবার, ১৪ জানুয়ারী ২০২১, ০২:২৮ পূর্বাহ্ন

ঝুঁকির মুখে বিশ্বের কোটি কোটি শিশু

ডিজিটাল নোয়াখালী ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ১৬ জুলাই, ২০২০

হাম, টিটিনাস ও ডিপথেরিয়ার মতো ভয়ংকর রোগগুলো মোকাবিলায় শিশুদের টিকা দেওয়ার মাত্রা আশঙ্কাজনক হারে কমে গেছে।

এর ফলে বিশ্বের কোটি কোটি শিশু ঝুঁকির মুখে পড়ছে বলে বুধবার সতর্ক করেছে জাতিসংঘ।

জাতিসংঘের শিশু বিষয়ক সংস্থা ইউনিসেফের সঙ্গে দেওয়া যৌথ বিবৃতিতে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মহাপরিচালক টেডরস গেব্রিয়াসাস আধানম বলেছেন, ‘নিয়মিত টিকা দান কর্মসূচির অনুপস্থিতির কারণে শিশুদের এড়ানোযোগ্য দুর্ভোগ ও মৃত্যু কোভিড-১৯ এর চেয়ে বেশি হতে পারে।’

সংস্থা দুটির পরিচালিত জরিপে ৮২টি দেশের মধ্যে তিন চতুর্থাংশ অংশ নিয়েছে। তারা জানিয়েছে, গত মে মাস থেকে করোনাভাইরাসের কারণে তাদের টিকা দান কর্মসূচি ব্যাহত হচ্ছে। অধিকাংশ ঘটনাগুলো ঘটছে স্বাস্থ্যকর্মীদের পর্যাপ্ত ব্যক্তিগত সুরক্ষা সরঞ্জামের (পিপিই) অভাব, ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা এবং স্বাস্থ্যকর্মীর সংখ্যা কমে যাওয়ার কারণে। এর সবগুলো কারণে টিকাদান কর্মসূচি হয় সীমিত করা হয়েছে, নতুবা বন্ধ হয়ে গেছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, হামের অন্ততপক্ষে ৩০টি টিকাদান কর্মসূচি বাতিলের ঝুঁকিতে আছে অথবা বাতিল হয়ে গেছে। এর ফলে চলতি বছর অথবা আগামীতে এই সংক্রামক রোগের প্রাদুর্ভাবের ঝুঁকি বাড়ছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পরিসংখ্যান অনুযায়ী, ইতোমধ্যে হামের সংক্রমণ বেড়েছে। ২০১৮ সালে বিশ্বে প্রায় এক কোটি মানুষ হামে সংক্রমিত হয়েছেন। এদের মধ্যে মারা গেছে ১ লাখ ৪০ হাজার। এই আক্রান্ত ও মৃতের অধিকাংশই শিশু।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, চলতি বছরের প্রথম চার মাসে শিশুদের ডিপথেরিয়া, টিটিনাস ও হুপিং কাশির টিকার ডোজ পাওয়া উল্লেখযোগ্য পরিমাণে কমেছে। গত ২৮ বছরের মধ্যে এই প্রথম শিশুদের এই নিয়মিত টিকাদানের ব্যাপ্তি এতোটা কমেছে।

মতামত লিখুন :

এ জাতীয় আরো খবর..

আপনি কি খুঁজছেন?

পুরোনো মাসের সংবাদ

© All rights reserved © 2019 Digital Noakhali
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazardnoakha4